fbpx

আগামী মাসে দেখা যাবে “সুপার ব্লাড মুন” বা রক্ত চাঁদের

আগামী মাসে দেখা মিলবে বিরল মহাজাগতিক “ব্লাড মুন ” বা রক্ত চাঁদের। এইদিন ঘটবে বছরের সর্বোচ্চ চন্দ্রঘ্রাস। এইসাথে ওইদিনের চাঁদকে দেখতে লাল বর্ণের হবে। সাধারণ চাঁদের থেকে সুপার ব্লাড মুনের আকৃতি একটু বড় দেখাবে। সাধারণ চাঁদের থেকে ১৫ শতাংশ বড় দেখানো চাঁদটি অস্ত যাওয়ার পূর্বে প্রায় ১৫ মিনিটের জন্য হালকা লাল বর্ণ ধারণ করবে আমেরিকা থেকে ব্লাড মুনের দেখা মিললে ও দেখা যাবে না এশিয়াতে।

আগামী ২৬ই মে আমেরিকা থেকে এই মহাজাগতিক দৃশ্যের দেখা মিলবে।

রক্ত চাঁদ,ব্লাড মুন,সুপার ব্লাড মুন

সুপার ব্লাড মুন” বা রক্ত চাঁদের

আপনি কি জানেন আগামী মাসে দেখা যাবে “সুপার ব্লাড মুন” বা রক্ত চাঁদের দেখা যাবে ?

এশিয়াতে ব্লাড মুন দেখা যাবে ২০৩০ সালে। কখন: বুধবার, ২৬মে সময়: আনুষ্ঠানিকভাবে পূর্ব সময় সকাল ৭ঃ১৩ এ পূর্ণ সময় উত্থাপিত: পূর্ণিমা পূর্ব-উত্তর-পূর্ব আকাশে সকাল ৮ঃ৫৩ মিনিট থেকে উঠতে শুরু করবে বুধবার, ২৬মে নিউ ইয়র্ক সিটি অঞ্চলে। পূর্ণ ব্লাড মুনের সময়ঃ বৃহস্পতিবার, ২৭মে সকাল ৬ঃ৩০ মিনিটে (নিউইয়র্ক সময়)পশ্চিম-দক্ষিণ-পশ্চিম আকাশে অস্তমিত হবে। ব্লাড মুনের কারণ: মে মাসের চাঁদটি মোট চন্দ্রগ্রহণের সাথে মিলিত হবে, পৃথিবীর ছায়া সূর্যের আলোকে চাঁদকে আলোকিত করতে বাধা দেওয়ার কারণে চাঁদকে একটি মরিচা লালচে বর্ণ হিসাবে দেখা যাবে। এ কারণেই জ্যোতির্বিজ্ঞান বিশেষজ্ঞরা প্রায়শই একটি গ্রহন চাঁদকে “রক্তের চাঁদ” হিসাবে উল্লেখ করেন। শেষ ব্লাড মুন দেখা গিয়েছিল ২০১৯ সালের ৩০ই নমেভম্বর। এবং সেইবার ও ব্লাড মুন দেখা গিয়েছিলো শুধুমাত্র উত্তর ও দক্ষিণ আমেরিকা থেকে। আগামী বছর ও দেখা যাবে ব্লাড মুন। কিন্তু এশিয়া হতে ব্লাড মুন দেখা যাবে ২০৩০ সালে ।


Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Check Also
Close
Back to top button