fbpx

বাংলাদেশের করোনা পরিস্থিতিঃ সর্বোচ্চ হারে রোগী শনাক্ত

দেশে পবিত্র ঈদুল ফিতরের পর থেকে সর্বোচ্চ হারে রোগী শনাক্ত হচ্ছে। ঈদের সময় কল কারখানা বন্ধ থাকায় লোকজনের যাতায়াত বেড়ে যায় এবং এর কারণে বর্তমানে করোনা পরিস্থিতি ক্রমশ খারাপের দিকে যাচ্ছে। বাংলাদেশের করোনা রোগীর শনাক্তের হার বেড়ে ১০ শতাংশের উপরে উঠেছে।

বাংলাদেশের সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় ১০ দশমিক ৪০ শতাংশ হারে রোগী শনাক্ত হয়েছে, এমনটাই জানিয়েছেন গতকাল শুক্রবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে বিজ্ঞপ্তিতে। গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার গত তিন সপ্তাহের থেকেও বেশি। এর আগে সবচেয়ে বেশি রোগী শনাক্ত হয় ঈদুল ফিতরের দিন, ঐদিন রোগী শনাক্ত হার ছিল ১০ দশমিক ৮২ শতাংশ।

গতবছর মার্চ মাসে করোনা ভাইরাস শনাক্তের পর, এ বছর আবার মার্চ মাস থেকে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ শুরু হয়। এপ্রিলে করোনা সংক্রমণ আরো বেড়ে যায় এবং ৯ এপ্রিল করোনা সংক্রমনের দ্বিতীয় ঢেউয়ের সর্বোচ্চ হারে রোগী শনাক্ত হয়, যা ছিল ২৩ দশমিক ৫৭ শতাংশ।

গত ২৪ ঘণ্টায় ১৮ হাজারের বেশি নমুনায় পরীক্ষা করা হয় এবং ১ হাজার ৮৮৭ জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়। করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় আরো ৩৪ জন রোগী মৃত্যুবরণ করেছে এবং গত ৮ দিন ধরে করোনা ভাইরাসে মৃতের সংখ্যা ৩০ এর নিচে নামছেই না।

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় মৃত ৩৪ জনের মধ্যে পুরুষের সংখ্যা ২০ ও নারী ১৪ জন এবং এ নিয়ে দেশে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যা দাঁড়ায়- পুরুষ ৯ হাজার ২০১ জন ও নারী ৩ হাজার ৫৫৭ জন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Check Also
Close
Back to top button